ডায়াবেটিস নিয়েও পূর্ণ জীবন উপভোগ করতে চান?

পরিবারের সবাই জানুন ডায়াবেটিস সম্বন্ধে। কেবল তাই না, জানুন এর ঝুঁকি, লক্ষণ ও উপসর্গ সম্বন্ধে। কারণ, আগাম জানা গেলে এবং চিকিৎসা হলে ডায়াবেটিস নিয়েও পূর্ণ জীবন উপভোগ করতে পারবেন।

এ দেশের মহামহিম চিকিৎসা বিজ্ঞানী প্রয়াত জাতীয় অধ্যাপক ইব্রাহিম বলেছিলেন, ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রনে প্রয়োজন তিনটি D -এর।

১. DIET

২. DRUG

৩. DISCIPLINE.

এই সুবর্ণ সত্যটি এখনো কেউ খণ্ডাতে পারেননি।

আমরা যখন জানি দুজন ডায়াবেটিস রোগীর মধ্যে একজন জানেনই না যে তার রোগটি আছে, তাহলে অগোচরে এরা জটিলতার পথে চলেছে। অন্ধত্ব, অঙ্গচ্ছেদের মত, কিডনি রোগ, হৃদরোগ ও স্ট্রোকের মত জটিলতা তাদের জীবনকে আচ্ছন্ন করবে।

এ থেকে সহজে পরিত্রান পাওয়া যেত, যদি এই রোগ সম্বন্ধে সচেতন হওয়া যেত, লক্ষণ উপসর্গ চেনা যেত এবং প্রতিরোধের উপায় জানা যেত।

রক্তের গ্লুকোজ নিয়ন্ত্রণে না থাকার জন্য এমন হল। এছাড়া অনেকের আছে প্রি ডায়াবেটিস, এদের ডায়াবেটিস হয়নি তবে হবার জরুরি সম্ভাবনা। এই পর্যায়ে প্রতিরোধ করলে ডায়াবেটিস হওয়া অনেকটা ঠেকানো যায়, অন্তত বিলম্বিত করা যায়। অথচ ৯০ শতাংশ লোকই জানেন না যে তাদের ঝুঁকি আছে কি না।

সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ হল সচেতনতার ঘাটতি। অনেকেই জানেন না যে ডায়াবেটিস একটি বিপাকীয় রোগ। এ রোগে রক্তের গ্লুকোজ স্বাভাবিক সীমার উপর চলে যায়। আর এর ফলে শরীর খাদ্য থেকে আসা এনার্জি ব্যবহার করতে পারে না। ৯৫ শতাংশ হল টাইপ ২ ডায়াবেটিস। এমন হলে শরীর ইনসুলিনকে সঠিক কাজে লাগাতে পারে না। ৫ শতাংশ হল টাইপ ১ ডায়াবেটিস, এটি অটোইম্মিউন রোগ, শরীর ইনসুলিন তৈরি করতে পারে না। করলেও খুব কম।

রক্ত পরীক্ষা করলে এতে কি বোঝা গেলো তাও জানা ভাল।

কখন বলব ডায়াবেটিস?

* খালি পেটে রক্তের নমুনায় যদি রক্ত গ্লুকোজ ১২৬ মিলি গ্রাম/ ডেসি লিটারের বেশি হয়।

* আহারের ২ ঘণ্টা পর যদি হয় ২০০ মিলিগ্রাম বা এর চেয়ে বেশি।

* আরেকটি টেস্ট হল এইচবি১সি। গত ৩ মাসে রক্তে গ্লুকজের গড় মান। ৬.৫ বা এর বেশি।

* আর রক্তে গ্লুকোজ খালি পেটে যদি থাকে ১০০ -১২৫ মিলিগ্রাম আর আহারের ২ ঘণ্টা পর ১৪০-১৯৯ মিলিগ্রাম তাহলে আছে প্রি ডায়াবেটিস। এআইসি ৫.৭ -৬.৪।

এবার ডায়াবেটিস দিবসের থিম হল পরিবার আর ডায়াবেটিস। সুরক্ষা করুন পরিবার। পরিবারের সবাই এই রোগ মোকাবেলায় জড়িত হবেন, জানবেন রোগ সম্বন্ধে, চিনবেন উপসর্গ, আগাম চিকিৎসা নেবেন, আর জীবন যাপনে সবাই পরিবর্তন আনবেন। স্বাস্থ্যকর আহার, ব্যায়াম, জীবনে শৃঙ্খলা এনে সবাই পূর্ণ জীবন উপভোগ করবেন।

Prof Dr Subhagata Choudhury

Ex Principal Chittagong Medical College
Ex Dean Medicine, Chittagong University
Ex Director, Lab Service, BIRDEM

Add comment