minimalism for focus and concentration

দেহভঙ্গী যেন হয় সুন্দর

লাউজি পশ্চার মানে বাজে দেহভঙ্গী। স্লাউচ হতে নেই। শ্রান্ত অলস ভঙ্গী পছন্দের নয়। চাপ পড়ে শিরদাঁড়ার উপর। শিরদাঁড়াকে সোজা রাখতে যে সব হাড়, পেশি, অস্থিসন্ধি দরকার এগুলোর উপর পড়ে চাপ। এমন ধপ করে বসে আছেন অলস ভঙ্গিতে যেমন তেমন এতে দেহের আন্তর যন্ত্রের কাজে সমস্যা হয় পরিপাক নলের আর ফুস্ফুসের।

সোজা,ঋজু ভঙ্গীতে দাঁড়ান। মাথা সোজা, চিবুক ভেতরে। কান দুটো কাঁধের মধ্য খানে। কাঁধ পেছন দিকে, জানু সন্ধি সোজা, পেট ভেতর দিকে। মাথা যেন আকাশ ছুঁতে চায়।

ডেস্কে ঘাড় নুয়ে বসা নয়। পিঠ পেছনে চেয়ারের সাথে। কোমরের পেছনে রোল আপ টাওয়েল বা লাম্বার কুশন। হাঁটু সমকোণে বাকিয়ে আর পায়ের পাতা মেঝেতে।

টেক্সট নেকের ব্যাপারে সাবধান। সারাদিন স্মার্ট ফোনে? টেক্সট করছেন? ঘাড় স্ট্রেস করার সময় নিন।

লো রাইডার হবেন না। গাড়ি চালাতে, লং ড্রাইভ অলস শুইয়ে পেচনে হেলে নয়। বরং সিট আনুন হুইলের কাছে। পা দুটো লক করে বসা নয়। কোমরের পেছনে রোল করা টাওয়েল।

হাই হিল জুতো পরা নয়।

শোবেন রাতে দৃঢ় তোষকে, পাশ ফিরে, পা দুটো সামান্য ভেঙ্গে। বালিশ মাথার নিচে শিরদাঁড়ার লেভেলে থাকবে।

ব্যায়াম করুন আর তল পেটের ব্যায়াম ।

সমস্যা আছে ?
দেয়ালে পিঠ দিয়ে দাঁড়ান। ভঙ্গি দেখান ট্রেনারকে।

Prof Dr Subhagata Choudhury

Ex Principal Chittagong Medical College
Ex Dean Medicine, Chittagong University
Ex Director, Lab Service, BIRDEM

Add comment